Saturday, 19 May 2012


প্রাণী মাত্র 

সে মায়াবিনী অভিসারিকা, ঘুরে বেড়ায় নিশীথ রাতে
একাকী, আম্রকুঞ্জের পথ হতে ওই দক্ষিনা ঢিবির 
আড়ালে, ঠিক জামরুল গাছের মাথায় 
যখন জোনাকিরা আসর বসায়,
সে গান ধরে কোন মোহক 
সুরে, কৃষ্ণ পক্ষের 
আকাশে 
অগুণিত তারকের দরদালানে, তখন মহা হুলুস্থুল ওঠে,
নীহারিকার সেই আলোর স্রোতে ভেসে যায় যেন 
তিন ভুবন, তার জাদুর ছলে রাত করে 
অভিনব শৃঙ্গার, মন ধেয়ে যায় 
এক অজানা, অপরিচিত 
পথে, সিক্ত পবনে 
যেন গুপ্ত 
অগ্নিশিখা বহে, দেহ ও প্রাণের মাঝে মধুর আগুনে জ্বলে, 
জীবন তখন আত্মঘাতী, আঁধার আলোর বাহিরে, 
মাংসপেশীর সত্তার আগে বিবেক যায় হেরে,
দেহ তখন চায় শল্কের স্খলন, এক 
নতুন রূপান্তরণ, আবরণ
বিহীন জীবন, এক 
পরিপূর্ণ দর্পণ,
মানুষ ও পশুর পার্থক্য তখন নিমেষে যায় কমে, শুধু
মাত্র সে তখন এক প্রাণী, পুরুষ অথবা নারী
শব্দের বিশ্লেষণ পড়ে থাকে অভিধানে,
অর্থহীন, মূল্যহীন ভাবে - - -

- শান্তনু সান্যাল
http://sanyalsplanet.blogspot.com/


Painting by Deborah Nell 

No comments:

Post a Comment